আনজুমান-জামেয়ার খেদমতগার আবুল কালাম আজাদের ইন্তেকাল: জানাযায় মানুষের ঢল

প্রকাশিত: 6:48 AM, August 5, 2020

চন্দনাইশ প্রতিনিধিঃ

গাউসিয়া কমিটি চন্দনাইশ বৈলতলী ইউনিয়ন শাখার উপদেষ্টা, চট্টগ্রাম বন্দর মেরিনের (অব:প্রাপ্ত) প্রথম শ্রেনীর মাস্টার, আনজুমান-জামেয়ার খেদমতগার, মাস্টার মুহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ (৬২) গত ৪ আগস্ট, মঙ্গলবার, বিকাল ৪ ঘটিকার সময়
বাগে সিরিকোট নিজ বাসভবনে ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না-ইল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রাজেউন) মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ২ ছেলে, ২ মেয়ে,নাতি – নাতনী সহ অসংখ্য আত্মীয় স্বজন রেখেযান। মরহুমের নামাজের জানাযা ঐদিন রাত ৯ টার সময় বৈলতলী পূর্বপাড়া বায়তুল আকদস জামে মসজিদ মাঠে অনুষ্ঠিত হয়।
উল্লেখ যে তিনি বাংলাদেশ ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক উপ-পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক এবং চট্টগ্রাম সরকারি সিটি কলেজ ছাত্র সংসদের বক্তৃতা -বিতর্ক সম্পাদক মুহাম্মদ আবদুর রহিম জিল্লুর পিতা
আল-হাসনাইন মেমোরিয়াল ফাউন্ডেশনের পৃষ্ঠাপোষক ও গাউসিয়া কমিটি বাংলাদেশ দুবাই ইন্টারন্যাশনাল সিটির সভাপতি আলহাজ্ব মুহাম্মদ ফারুক বাহাদুরের শশুর আব্বা। মাস্টার আবুল কালাম আজাদের ইন্তেকালে শোক প্রকাশ করেছেন গাউসিয়া কমিটির কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যান আলহাজ্ব পেয়ার মুহাম্মদ,মহাসচিব শাহজাদ ইবনে দিদার, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলার সভাপতি আলহাজ্ব মুহাম্মদ কমর উদ্দিন সবুর, সাধারণ সম্পাদক মুহাম্মদ হাবিব উল্লাহ মাস্টার।চাকতাই বনিক কল্যান ব্যবসায়ী সমিতির সাবেক সভাপতি আলহাজ্ব আহমদুর রহমান সওদাগর, চন্দনাইশ সমিতি – চট্টগ্রামের পূষ্ঠাপোষক ইসমাইল চৌধুরী হানিফ, গাউসিয়া কমিটি চন্দনাইশ উপজেলার সভাপতি আবদুল গফুর খান,সাধারণ সম্পাদক নজরুল ইসলাম,বৈলতলী ইউনিয়ন শাখার উপদেষ্টা মাওলানা আবুল কাশেম, সভাপতি আলহাজ্ব মুহাম্মদ নুরুল আবছার,সহ- সভাপতি ডা: এম.এ.আউয়াল, সাধারন সম্পাদক মুহাম্মদ মিজানুর রহমান। হারলা-দক্ষিন জোয়ারা শাখার সাবেক সাধারণ সম্পাদক এম.এ.আউয়াল শোক প্রকাশ করেছেন এবং শোকাহত পরিবার পরিজনদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করেন। মহান আল্লাহ পাক তাঁকে জান্নাতুল ফেরদৌসের সু-উচ্চ মকাম নসিব করুক – আমিন।